1. ajkernirbangla@gmail.com : দৈনিক আজকের নীরবাংলা : দৈনিক আজকের নীরবাংলা
  2. info@www.ajkernirbangla.com : দৈনিক আজকের নীরবাংলা :
মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ১১:৩৩ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :
ফতুল্লার নন্দলালপুরের ভূমিদস্যু প্রতারক আলতাফ হোসেন গ্রেফতার শৈলকুপায় সামাজিক দ্বন্দ্বের বলি ২৫ কৃষকের ৪০ বিঘা জমির কলাগাছ! শাক দিয়ে মাছ ঢাকতে চায় না’গঞ্জ পাসপোর্ট দপ্তর কেঁচো খুড়তে সাপ বেড়িয়ে আসছে! আ’লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে খান মাসুদের পক্ষ থেকে বিশাল মিছিল না’গঞ্জ সাংবাদিক ইউনিয়নের নির্বাচনে সালাম-স্বপন-শাওন প্যানেলের মনোনয়ন জমা না’গঞ্জে মেট্রোরেলসহ কুয়াকাটার রেলপথে চীনের বিনিয়োগ চায় সরকার পুলিশ ও ম্যাজিস্ট্রেট ছাড়াই সোনারগাঁয়ে ১৬শ’অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন বন্দরে আলোচিত মনু হত্যায় আটক ২ জাকির খানের বিরুদ্ধে দু’জনের সাক্ষ্যগ্রহণ ফতুল্লা থানা মৎস্যজীবী দলের কমিটি ঘোষণা

দাম বেড়েছে সোনালি মুরগির, অপরিবর্তিত গরুর মাংস

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত: শুক্রবার, ২৬ এপ্রিল, ২০২৪
  • ৫৭ বার পড়া হয়েছে

ঈদের পরে বেড়েছে মুরগির দাম। গত সপ্তাহের তুলনায় সোনালি মুরগির দাম বৃদ্ধি পেয়েছে ৩০ টাকার বেশি। তবে ব্রয়লার মুরগির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।  গরুর মাংসের দামও অপরিবর্তিতই রয়েছে।

আজ (শুক্রবার) রাজধানীর খিলগাঁও বাজারে ঘুরে দেখা দেখা যায়, সোনালি মুরগি ৩৯০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। যা ঈদের সময় বিক্রি হয়েছিল ৩৬০ টাকা দরে। আর ব্রয়লার মুরগি ২০০ থেকে ২১০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে।

ব্যবসায়ীদের দাবি, ঈদের সময় এবং পরে এটি ২৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হয়েছে। সেই হিসেবে দাম কমেছে।

কিন্তু ক্রেতারা বলছেন ব্রয়লার মুরগির দাম কমেনি। আগেও ব্রয়লার মুরগি  ছোটটা বিক্রি হতো ২০০-২১০ টাকা কেজি দরে। আর বড়টি ২১০-২২০ টাকায় বিক্রি হতো। এখনও সেই দামে বিক্রি হচ্ছে। আর সোনালি মুরগি আগে ৩৫০-৩৬০ টাকায় বিক্রি হতো। এখন সেটির দাম বেড়ে ৩৯০ টাকা হয়ে গেছে। আর আসল দেশি মুরগি খুব একটা পাওয়া যায় না। পাওয়া গেলে সেটির দাম ৭০০ থেকে ৮০০ টাকায় কেজি বিক্রি হয়।

মুরগি ব্যবসায়ী শিহাব ঢাকা পোস্টকে বলেন, ঈদের সময় ব্রয়লার মুরগি বিক্রি করেছি ৩৫০ টাকায় কেজিতে। এটির দাম কমে এখন বিক্রি হচ্ছে ২০০ থেকে ২১০ টাকায়। আর সোনালী মুরগি পিস বিক্রি করেছি ৩৬০ টাকায়। এখন এটির দাম বেড়ে ৩৯০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

খিলগাঁও বাজার ঘুরে দেখা গেছে, গুরুর মাংস ৮০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আর একটু হাড় বেশি নিলে সেটির দাম রাখা হচ্ছে ৭৮০ টাকা। এছাড়া গরুর অন্যান্য অংশ বিভিন্ন দামে বিক্রি হতে দেখা গেছে। আর খাসির মাংসের কেজি ১১০০ থেকে ১২০০ টাকা।

খিলগাঁও কাঁচাবাজারে বাজার করতে আসা রফিকুল ইসলাম বলেন, সবজির দাম গত সপ্তাহের মতো আছে। এর মানে এই নয় যে দাম কম। তবে সব ধরনের মুরগির দাম বেড়েছে।

তিনি বলেন, মাছ-মাংস কিনে খাওয়া এখন অনেকটা বিলাসিতা হয়ে গেছে। কিন্তু ঘরে ছোট ছেলে-মেয়েদের জন্য অনেকটা বাধ্য হয়ে কিনতে হয়।

রফিকুল ইসলামের দাবি, আসলে বাজারে নৈরাজ্য চলছে। এটি দেখার কেউ নেই। ব্যবসায়ীরা যখন যেভাবে খুশি দাম বাড়ায়। তাদের কাছে ক্রেতারা জিম্মি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

পুরাতন সংবাদ পড়ুন

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট